Featured বাংলাদেশ থেকে সুস্থ থাকুন

বায়ুদূষণের শহরে কিভাবে প্রশমন করবেন ‘ডাস্ট অ্যালার্জি’?

শেয়ার করুন

গতকাল মঙ্গলবার বাতাসের মান নিয়ে কাজ করা প্রতিষ্ঠান ‘এয়ার ভিজ্যুয়াল’ জানিয়েছে বিশ্বের সবচেয়ে দূষিত বায়ুর শহরের তালিকায় এক নম্বরে আছে রাজধানী ঢাকা।

এয়ার ভিজ্যুয়ালের তথ্য অনুযায়ী মঙ্গলবার এয়ার কোয়ালিটি ইনডেক্সে (একিউআই) ঢাকার স্কোর ২১২, যা খুবই অস্বাস্থ্যকর। আর দিল্লির স্কোর ১৯৬, যাকে চিহ্নিত করা হয়েছে অস্বাস্থ্যকর হিসেবে। অর্থাৎ দিল্লির থেকেও মারাত্মক ঝুঁকিতে আছে রাজধানীবাসী।

বায়ুদূষণের অন্যতম কারণ ধুলাবালি। শীতের সময় এই ধুলাবালির কারণেই হয়ে থাকে অ্যালার্জি। এই ‘ডাস্ট অ্যালার্জি’ এর কারণে হাঁচি, কাশি ছাড়াও চোখ-নাক থেকে পানি পড়া, শ্বাসকষ্ট বা ত্বকে র‍্যাশও দেখা দেয়। এমন পরিস্থিতিতে কখনই ডাক্তারের পরামর্শ ছাড়া কোণো ধরণের অ্যালার্জির ওষুধ গ্রহণ করা উচিত না।

ওষুধ গ্রহণ ছাড়াই যেভাবে এই ‘অ্যালার্জি’ প্রশমন করা যায়-

১) বেশি করে সবুজ শাক-সবজি খেতে হবে। যা রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ানোর সাথে সাথে অ্যালার্জির প্রবণতা কমাতেও সাহায্য করে।

২) ডাস্ট অ্যালার্জির সমস্যায় গ্রিন টি খেয়ে দেখতে পারেন। গ্রিন টি-এর অ্যান্টিঅক্সিড্যান্ট উপাদান চোখের লাল ভাব, গায়ের র‍্যাশ ইত্যাদি রুখে দিতে অত্যন্ত কার্যকর।

৩) ডাস্ট অ্যালার্জির সমস্যায় ঘি খেয়ে দেখতে পারেন।  ঘি প্রাকৃতিক ভাবে যে কোনও ধরনের অ্যালার্জির সমস্যার সঙ্গে লড়াই করতে সক্ষম। এক চামচ ঘি তুলোয় লাগিয়ে সরাসরি র‍্যাশে আক্রান্ত ত্বকে লাগান। ত্বকের জ্বালা ভাব, অস্বস্তি অনেকটাই কমে যাবে। এছাড়া প্রতিদিন ১ চামচ করে ঘি খেলে ঠান্ডা লাগা বা অ্যালার্জির সমস্যায় আক্রান্ত হওয়ার ঝুঁকি অনেকটাই কমে যেতে পারে।

৪) মাথা যন্ত্রণা, বন্ধ নাক, চোখ-নাক দিয়ে জল পড়া ইত্যাদির সমস্যায় একটি পাত্রে গরম জল নিয়ে তার মধ্যে কয়েক ফোঁটা ইউক্যালিপটাস তেল ফেলে তার ভাপ (বাষ্প) নিন। এতে বন্ধ নাক খুলে যাবে, নাকের ভিতরে অ্যালার্জির কারণে হওয়া অস্বস্তিও দূর হবে।

৫) আদা মধু এবং লেবু সহযোগে চা পান করুন। আদা বুকে জমে থাকা কফ এবং রক্ত জমা হওয়ার হাত থেকে মুক্তি দেয়। অপরদিকে মধু কাশি কমাতে সাহায্য করে। এছাড়াও পাতিলেবুতে প্রচুর পরিমাণে সাইট্রিক অ্যাসিড বা ভিটামিন সি থাকায় রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়াতে সাহায্য করে। সুতরাং একটি পাত্রে পরিমাণমত জল এবং তাতে মাঝারি সাইজের একটুকরো আদা এবং এক চামচ মধু ও লেবুর রস সহযোগে ফুটিয়ে পান করুন। দেখবেন এই দূষণেও আপনার ফুসফুস কেমন ফুরফুরে থাকবে।

উপরের পদ্ধতিগুলো স্বাভাবিক পর্যায়ের সমস্যার জন্যই কার্যকর। মারাত্মক আকারের ডাস্ট অ্যালার্জি হয়ে থাকলে অবশ্যই চিকিৎসকের শরণাপন্ন হতে হবে।

  • সুমাইয়া হোসেন লিয়া, প্রবাস কথা, ঢাকা।
শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.