Featured ইউরোপ

ফ্রান্সে গ্রীষ্মের তাপদাহে ১৫০০ জনের মৃত্যু

পশ্চিম ইউরোপের দেশ ফ্রান্সে গ্রীষ্মের প্রচণ্ড তাপদাহে দেড় হাজার মানুষের প্রাণহানি ঘটেছে। নজিরবিহীন এই তাপমাত্রায় গ্রীষ্মকালের ক্ষয়ক্ষতির বিষয়ে এক বিবৃতিতে দেশটির স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় এ তথ্য জানায়। রবিবার ফরাসি বেতার ইন্টার রেডিওতে এক বক্তৃতাকালে স্বাস্থ্যমন্ত্রী অ্যাগনেস বুজঁ জানান, নিহতদের অর্ধেকের বয়স ৭৫ বছরের ওপরে।

বিবৃতিতে স্বাস্থ্যমন্ত্রী জানান, তাপদাহে মৃতের সংখ্যা আরও বাড়তে পারতো। কিন্তু জনসচেতনতা বৃদ্ধিতে সরকারি বিভিন্ন ক্যাম্পেইনের ফলে তা রোধ করা সম্ভব হয়েছে। জুন ও জুলাই মাসে মোট ১৮ দিন ফ্রান্সে রেকর্ড মাত্রায় তাপদাহ বয়ে যায়। তারপরও ২০০৩ সালের তাপদাহের চেয়ে এবারে নিহতের সংখ্যা অনেক কম। সেবার দেশজুড়ে ১৫ হাজারের মতো মানুষের প্রাণহানি হয়।

চলতি বছরের গ্রীষ্মের ২৪ জুন থেকে ৭ জুলাই পর্যন্ত প্রথম তাপদাহে ফ্রান্সে ৫৬৭ জনের প্রাণহানি ঘটেছে। পরবর্তী ২১ থেকে ২৭ জুলাইয়ে আরো ৮৬৮ জন মারা গেছেন।

ফ্রান্সে এ যাবৎকালের সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ৪৬ ডিগ্রি সেলসিয়াস (১১৪.৬ ডিগ্রি ফারেনহাইন) রেকর্ড করা হয়েছে চলতি বছরের জুনে। দেশটির রাজধানী প্যারিসে সর্বোচ্চ ৪২ দশমিক ৬ ডিগ্রি সেলসিয়াস রেকর্ড করা হয় গত জুলাইয়ে।

  • প্রবাস কথা ডেস্ক 

আরও পড়ুন- যুক্তরাজ্যে ঘরে ঘরে ‘ব্যাক টু স্কুল’ প্রস্তুতি

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.