Featured এশিয়া চীন সুস্থ থাকুন

করোনা ভাইরাসের নতুন নামকরণ; কেন দেওয়া হলো এই নাম?

শেয়ার করুন

চীনের উহান থেকে উৎপত্তি হওয়া প্রাণঘাতি করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন ৪০ হাজারেরও বেশি মানুষ। তবে সম্প্রতি করোনা গোত্রের এই ভাইরাসটির নতুন নাম নির্ধারণ করেছে জাতিসংঘের বিশ্বস্বাস্থ্য সংস্থা।

নতুন নাম কোভিড-১৯

গতকাল মঙ্গলবার (১১ ফেব্রুয়ারি) বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার’ প্রধান চিকিৎসক টেড্রোস আধানম গ্যাব্রিয়েসুস এক সংবাদ সম্মেলনে এই নতুন নামের ঘোষণা দেন।  জেনেভায় আয়োজিত এই আনুষ্ঠানিক ঘোষণায় একে ‘কোভিড-১৯’  নাম দেওয়া হয়েছে।

কোভিড-১৯ (COVID-19) নামের ব্যাখ্যায় তিনি বলেন,

কোভিডের কো (CO) দ্বারা করোনা, ভি (VI) দ্বারা ভাইরাস এবং ডি (DI) দিয়ে ডিজিস বা রোগকে বোঝানো হচ্ছে। নামের শেষের ১৯ দিয়ে মূলত ভাইরাসটির সংক্রামন শুরু হওয়ার সাল নির্দেশ করা হয়েছে ।

কেন নতুন নামকরণের প্রয়োজন?

২০১৯ সালের ডিসেম্বর মাসে চীনের উহান শহরে সর্বপ্রথম করোনা গোত্রের ভাইরাস ছড়িয়ে পড়ে। করোনা গোত্রীয় হলেও নতুন এই ‘ভাইরাল স্ট্রেইন’টির যথার্থ নামকরণ করা পূর্বে সম্ভব হয়নি। অধিকাংশ গণমাধ্যম একে করোনা ভাইরাস বললেও কেউ কেউ একে চায়না ভাইরাস হিসেবেও উল্লেখ করতে থাকে। তবে এমন প্রবণতা বর্ণবাদি মনোভাব ছড়াবে এমন বিবেচনা থেকেই নতুন করে নামকরণের উদ্যোগ নেয়া হয়।

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার প্রধান চিকিৎসক এ বিষয়ে জানান,

আগামী দিনে নতুন কোনো করোনা গোত্রের ভাইরাস সংক্রমণ হলে তখন তাকে বর্তমান নামের সঙ্গে মিল রেখে নামকরণ করা হবে।

ভাইরাসের প্রাদুর্ভাব

ভাইরাসটি চীন ছাড়াও বর্তমানে পৃথিবীর ২৮ টি দেশে ছড়িয়ে পড়েছে। ভাইরাস প্রাদুর্ভাবের প্রায় ছয় সপ্তাহ পরে এই নতুন নাম কোভিড-১৯ নির্ধারণ করলো বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা।

উল্লেখ্য, বর্তমানে এই কোভিড-১৯ ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে সহস্রাধিক মানুষ প্রাণ হারিয়েছে। আক্রান্ত হওয়া রোগীর সংখ্যা ৪২ হাজার বলে উল্লেখ করতে চীনের স্বাস্থ্য সংস্থা। তবে এই ভাইরাসের ভ্যাকসিন আবিষ্কার হতে আরও অনেক সময় লাগবে বলেই জানাচ্ছেন বিশেষজ্ঞরা।

  • সুমাইয়া হোসেন লিয়া, প্রবাস কথা, ঢাকা।
শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.