Featured এশিয়া বিনোদন ভারত

আজ থেকে থাকতে হবে জেলে; একনজরে সালমান খানের মামলা

শেয়ার করুন

আজ রাতে জোধপুর সেন্ট্রাল জেলে কাটাতে হবে সালমান খানকে। কৃষ্ণসার প্রজাতির হরিণ শিকার মামলায় বলিউড সুপারস্টার সালমান খানকে দোষী সাব্যস্ত করেছে ভারতের রাজস্থানের যোধপুরের একটি আদালত। এই অভিনেতার ৫ বছরের জেল হয়েছে। ১০ হাজার রুপি অর্থদণ্ডও দেওয়া হয়েছে তাকে।

এই মামলায় অন্য চার অভিযুক্ত ছিলেন সইফ আলি খান, তব্বু, নীলম এবং সোনালি বেন্দ্রে। তাঁদের অবশ্য বেকসুর ঘোষণা করেছে আদালত।

সালমান খানের আইনজীবী এইচ এম সারস্বতের দাবি করেন, সরকারি কৌঁসুলি অভিযোগের স্বপক্ষে প্রমাণ সংগ্রহ করতেই পারেননি। মামলা সাজাতে ভুয়া সাক্ষী দাঁড় করিয়েছেন। এমনকি, বন্দুকের গুলিতেই যে কৃষ্ণসার দু’টির মৃত্যু হয়েছিল, তা-ও সরকারি কৌঁসুলি প্রমাণ করতে পারেননি বলে দাবি করেছেন সারস্বত। ২৮ মার্চ নিম্ন আদালতে কৃষ্ণসার মামলার চূড়ান্ত পর্যায়ের শুনানি শেষ হয়।

১৯৯৮ সালে রাজস্থানের বিলুপ্ত প্রায় প্রাণি কৃষ্ণ হরিণ হত্যার ঘটনায় মামলা হয় এই বলিউড তারকাদের নামে। আদালত সেই মামলার রায় দিয়েছে আজ বৃহস্পতিবার (৫ এপ্রিল)। সেখানে বলিউড ভাইজান সালমান খান দোষী সাব্যস্ত হয়েছেন। এতে তাকে ৫ বছর কারাদণ্ড দেয়া হয়েছে। তবে তিনি আপিল করতে করার সুযোগ পাবেন।

রায় হওয়ার পর সাংবাদিকদের কাছে সালমান খানের আইনজীবী এইচ এম সারস্বত দাবি করেন, সরকারের তরফ থেকে সালমান খানের বিরুদ্ধে অভিযোগের সপক্ষে তেমন কোনো প্রমাণ দেয়া হয়নি। মামলা সাজাতে ভুয়া সাক্ষী দাঁড় করিয়েছেন সরকারি উকিল। এমনকি বন্দুকের গুলিতেই যে কৃষ্ণসার দুটির মৃত্যু হয়েছিল, তা-ও সরকারি কৌঁসুলি প্রমাণ করতে পারেননি। গত ২৮ মার্চ নিম্ন আদালতে কৃষ্ণসার মামলার চূড়ান্ত পর্যায়ের শুনানি শেষ হয়।

বন্যপ্রাণি সংরক্ষণ আইনের ৫১ ধারা অনুযায়ী সালমানের বিরুদ্ধে অভিযোগ আনা হয়। ৫১ ধারার অধীনে সর্বোচ্চ সাজা ৬ বছর হওয়ার সুযোগ ছিলো। কিন্তু আদালত কিছুটা নমনীয় হয়ে তার বিরুদ্ধে ২ বছরের কারাদণ্ডের সাজা ঘোষণা করেন।

৫২ বছর বয়সী সালমান এর আগে আদালতে নিজেকে নির্দোষ দাবি করে বলেন, হরিণগুলো এমনিতেই মারা গেছে। তাকে ফাঁসানো হচ্ছে।

১৯৯৮ সালে ‘হাম সাথ সাথ হ্যায়’ সিনেমার শুটিংয়ের জন্য রাজস্থানে যান সালমান, সাইফ আলী খান, সোনালি বান্দ্রে, নিলম ও টাবুসহ অন্যান্য সহশিল্পীরা। ১ এবং ২ অক্টোবর যোধপুরের কাছে কঙ্কনি গ্রামে তারা দুটি বিরল প্রজাতির কৃষ্ণ হরিণ শিকার করেন বলে অভিযোগ।

বলিউড সূত্রে জানা গেছে, এই মুহূর্তে সালমানের উপর এক হাজার কোটিরও বেশি লগ্নি রয়েছে। তাঁর সাজা হওয়ায় অনিশ্চিত হয়ে পড়ল এই ফিল্মগুলির ভবিষ্যত্। মামলার রায় ঘোযণার একদিন আগে অর্থাত্ বুধবার জোধপুর পৌঁছান সালমান খান তাব্বু  এবং সাইফ আলি খান।

 

  • প্রবাস কথা ডেস্ক

 

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.