নরওয়ে

কে পাচ্ছে শান্তিতে নোবেল?

গেল বছর বিশ্বজুড়ে আলোচিত হয় রোহিঙ্গা ইস্যু, মিয়ানমার থেকে বিতারিত হয়ে আসা রোহিঙ্গাদের আশ্রয় দিয়ে বিশ্ব বিবেককে নাড়া দেন আমাদের প্রধান মন্ত্রী শেখ হাসিনা। আন্তর্জাতিক গনমাধ্যমে স্থান পায় বাংলাদেশের আশ্রায় শিবিরে ঠাই পাওয়া রোহিঙ্গাদের খবর ।

গত বছরের আগস্ট থেকে এখন পর্যন্ত বাংলাদেশে আশ্রয় নিয়েছে ৭ লাখেরও বেশি রোহিঙ্গা। গনমাধ্যম ও ব্রিটিশ প্রতিষ্টান লেড ব্রক্সের জড়িপ অনুযায়ী , চলতি বছরে শান্তিতে নোবেল পুরস্কারের ক্ষেত্রে বিবেচিত ঘটনা গুলোর মধ্যে আলোচনার শীর্ষে রয়েছে রোহিঙ্গা ইস্যু। গত এক দশকেরও বেশি সময় ধরে নোবেল বিজয়ীর নাম প্রকাশ করা প্রতিষ্টান লেড ব্রক্স বলছে , ধারাবাহিকতা অনুসারে এবার নোবেল পাওয়ার কথা কোন ব্যক্তির ।

আলোচনায় জাতিসংঘের শরণার্থী বিষয়ক সংস্থা ইউ এন এইচ সি আরের নামও উঠে এসেছে। তবে আন্ত কোরিয় শান্তি আলোচনার শীর্ষ দুই নেতার নামও আলোচনায় রয়েছে। ৬০ বছর পর শুরু হওয়া এই আলোচনায় শান্তির সুবাস বইছে এই উপদ্বীপে ,আর তাই দুই কোরিয় নেতা কিম ও মুনের যৌথভাবে নোবেল পেলেও থাকবেনা চমক। দীর্ঘ এই তালিকায় রয়েছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট এর নামও ,আছেন অভিবাসী সংকট মোকাবেলায় মানবিক পদক্ষেপের জন্য কাজ করা জার্মান চ্যান্সেলর এঞ্জেলা মার্কেল,পোপ- ফ্রান্সিসের মত ক্ষমতাধর ব্যক্তিরাও ।

এছাড়াও নোবেল পুরস্কার পেতে পারে এমন তালিকায় আছে ডব্লিউ এফ পি ওয়াইট হেলমেড সহ সেচ্ছাসেবী বিভিন্ন সংস্থার নাম । এ বছর শান্তিতে নোবেল পুরস্কারের তালিকায় স্থান পেয়েছে ৩৩১ প্রার্থী যার মধ্যে ২১৬ জন ব্যক্তি এবং ১১৫টি প্রতিষ্টান যা নোবেল ইতিহাসে সংখ্যায় দ্বিতীয়।
এর আগে ২০১৬ সালে সর্বোচ্চ ৩৭৬ প্রার্থী মনোনয়ন পেয়েছিলেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.